ক্যালিফোর্নিয়ায় জরুরি অবস্থা জারি

প্রকাশিত: ৭:৫০ পূর্বাহ্ণ, জুলাই ৭, ২০১৯ | আপডেট: ৭:৫০:পূর্বাহ্ণ, জুলাই ৭, ২০১৯
ক্যালিফোর্নিয়ায় জরুরি অবস্থা জারি

যুক্তরাষ্ট্রের ক্যালিফোর্নিয়া অঙ্গরাজ্যে পরপর দু’বার শক্তিশালী ভূমিকম্প এবং আরও বেশ কয়েকবার পরাঘাতের (আফটার শক) কারণে জরুরি অবস্থা জারি করেছে কর্তৃপক্ষ।

ভূমিকম্পের কারণে বেশ কিছু ভবন ও রাস্তায় ফাটল ধরেছে। কিছু কিছু এলাকায় বিদ্যুৎ সংযোগ বিচ্ছিন্ন হয়ে গেছে এবং অনেক স্থানে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটেছে। গত ২০ বছরে ক্যালিফোর্নিয়ায় এমন শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হানেনি। দমকল ও জরুরি বিভাগের কর্মীরা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছেন।

শক্তিশালী ভূমিকম্পের পর আরও পরাঘাত (আফটার শক) আঘাত হানতে পারে বলে জরুরি অবস্থা জারির পাশাপাশি লোকজনকে সতর্ক করেছেন ক্যালিফোর্নিয়ার গভর্নর গেভিন নিউসম।

এক টুইট বার্তায় নিউসম বলেন, নিরলসভাবে রাতভর এবং আজ সকাল পর্যন্ত এভাবে কাজ করে যাওয়ায় সবার প্রতি অনেক কৃতজ্ঞতা। ক্যালিফোর্নিয়ার নাগরিকদের উদ্দেশে তিনি বলেন, আমাদের সব সময়ই পরবর্তী ভূমিকম্পের জন্য প্রস্তুত থাকতে হবে।

শুক্রবার লস অ্যাঞ্জেলস থেকে ১৫০ মাইল উত্তর-পূর্বের রিডজেক্রেস্ট শহরে ৭ দশমিক এক মাত্রার শক্তিশালী ভূমিকম্প আঘাত হানে। এর প্রায় ৩৪ ঘণ্টা পর ৬ দশমিক ৪ মাত্রার আরও একটি ভূমিকম্প আঘাত হানে।

কের্ন কাউন্টির দমকল প্রধার ডেভিড উইট বলেন, ভূমিকম্প থেকে কারো মৃত্যুর খবর পাওয়া যায়নি। তবে কী পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা এখনও জানা সম্ভব হয়নি।

তিনি এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, আমরা জানি যে এখানে ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে। তবে কী পরিমাণ ক্ষয়ক্ষতি হয়েছে তা আমরা এখনও জানি না। কেউ কোথাও আটকা পড়েনি। বড় ধরনের কোন ক্ষয়ক্ষতিও হয়নি। তবে আমরা পুরো পরিস্থিতি খতিয়ে দেখছি। আগামী সপ্তাহের মধ্যে আরও কয়েকবার ভূমিকম্প আঘাত হানতে পারে বলে সতর্ক করা হয়েছে।