তজুমদ্দিনে ১৯ বছর পর ইউপি নির্বাচন

প্রকাশিত: ৬:৫৩ অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৬, ২০২১ | আপডেট: ৬:৫৩:অপরাহ্ণ, নভেম্বর ১৬, ২০২১
তজুমদ্দিনে ১৯ বছর পর ইউপি নির্বাচন

চতুর্থ ধাপের নির্বাচনে ভোলার তজুমদ্দিনে ২নং সোনাপুর ইউনিয়ন পরিষদে আগামী ২৩ ডিসেম্বর ভোট গ্রহণ অনুষ্ঠিত হবে। এরই মধ্যে আ’লীগ ও বিএনপির অনেকে নিজেকে প্রার্থী ঘোষণা দিয়ে ইউনিয়নের ভোটারদের কাছে ভোট চাওয়ার পাশাপাশি সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে ব্যানার দিয়ে প্রচার-প্রচারণা চালাচ্ছেন প্রার্থী নিজেসহ কর্মি সমর্থকরা।

নিজেকে প্রার্থী ঘোষণা দিয়ে যারা প্রচার প্রচারণা চালাচ্ছেন তাদের মধ্যে রয়েছেন উপজেলা যুবলীগ সভাপতি ও ভোলা জেলা পরিষদের সদস্য মেহেদী হাসান মিশু হাওলাদার, উপজেলা স্বেচ্ছাসেবকলীগের সভাপতি ইশতিয়াক হাসান, সোনাপুর ইউনিয়ন আ’লীগের সাবেক সভাপতি ও সাবেক ইউপি সদস্য শাহ মোঃ শাহাবুদ্দিন, আ’লীগে সমর্থক ইঞ্জিনিয়ার এইচ এম ওবায়দুর রহমান শিবলু।

এছাড়া বিএনপি সমর্থিত স্বতন্ত্রপ্রার্থী হিসেবে যাদের নাম শুনা যাচ্ছে তারা হলেন, উপজেলা বিএনপি’র সাংগঠনিক সম্পাদক শাহাদাত হোসেন পাটওয়ারী, সোনাপুর ইউনিয়ন বিএনপির সভাপতি আনছারুল হক পাটওয়ারী, সোনাপুর ইউনিয়ন বিএনপির সাধারণ মোঃ জাকির হোসেন মনু, উপজেলা যুবদল নেতা ও দন্তচিকিৎক ডা. ফিরোজ সিকদার।

বুধবার (১০ নভেম্বর) রাজধানীর আগারগাঁও নির্বাচন ভবনে কমিশনের সচিব হুমায়ুন কবির খোন্দকার নির্বাচনের এ তফসিল ঘোষণা করেন। ঘোষিত তফসিল মোতাবেক মনোনয়নপত্র জমা দেয়ার শেষ তারিখ ২৫ নভেম্বর, যাচাই বাচাই ২৯ নভেম্বর, আপিল দাখিলের শেষ তারিখ ৩০ নভেম্বর থেকে ২ ডিসেম্বর, আপিল নিষ্পত্তি ৩ থেকে ৫ ডিসেম্বর, প্রার্থীতা প্রত্যাহার ৬ ডিসেম্বর, প্রতীক বরাদ্দ ৭ ডিসেম্বর এবং ভোট গ্রহণ ২৩ ডিসেম্বর। ইউনিয়নটিতে সর্বশেষ ২০০৩ সালের ১০ ফেব্রুয়ারী সাধারণ নির্বাচন অনুষ্ঠিত হয়। এরপর সীমানা বিরোধের মামলা থাকায় দীর্ঘ ১৯ বছর নির্বাচন বন্ধ ছিলো। সোনাপুর ইউনিয়নে মোট ভোটার ১৭ হাজার ১শত ৬ জন। তার মধ্যে পুরুষ ভোটার ৯ হাজার ৫০ ও নারী ভোটার ৮ হাজার ৫৬।