বোরহানউদ্দিনে হামলা, আহত ১০

প্রকাশিত: ৯:১৪ অপরাহ্ণ, মে ২, ২০২১ | আপডেট: ৯:১৪:অপরাহ্ণ, মে ২, ২০২১
বোরহানউদ্দিনে হামলা, আহত ১০

ভোলার বোরহানউদ্দিন বড়মানিকা ইউনিয়নের ৩নং ওয়ার্ডে বাকলাই বাড়ীর মোঃ মোস্তাফিজুর রহমান বাকলাই গংরা আব্দুল হাসেম বাকলাই গংদের উপর হামলা করে ঘর ভাংচুর, মালামাল লুটপাট করার অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এ ঘটনায় উভয় গ্রুপের ১০ জন আহত হয়েছে। শনিবার সকাল সাড়ে ৮টায় বোরহানউদ্দিন ফায়ার সার্ভিস সংলগ্ন এলাকায় এ হামলার ঘটনা ঘটে।

আহত রিয়াজ উদ্দিন সজিব (৩২) অভিযোগ করে বলেন, আমার নানা মরহুম আব্দুল হাসেম এস.এ ৪৭৩ খতিয়ানে ২৭ শতাংশ জমির মালিক। ওই জমিতে ওয়ারিশ সূত্রে আমার মামা বাহার মিয়া ঘর উত্তোলন করে বসবাস করছে। শনিবার সকাল সাড়ে ৮টায় মোস্তাফিজুর রহমান গংদের আরাফাত নোমান ও রিজবান হোসেন এর নেতৃত্ব ৮০ হতে ৯০ জন ভাড়াটিয়া ক্যাডার বাহিনী নিয়ে ট্রাকে করে ইট এনে ওই বসত ঘরে ওই ইটপাটকেল নিক্ষেপ শুরু করেন।

ওই ঘরে থাকা মহিলাদের টানা হেচড়া করে ঘর হতে বাহির করে। ঘরটি ভাংচুর করে ঘরের মালামাল লুটপাট করেন। ঘরে থাকা নগদ ২ লক্ষ টাকা ও ৫টি মোবাইল সেট নিয়ে যায় হামলাকারীরা। আমরা বাধা দিতে গেলে হামলাকারীরা আমাকে সহ ৬ জনকে পিঠিয়ে রক্তাক্ত জখম করেন। আমার ছোট বোন আব্দুল জব্বার কলেজে পড়ুয়া জুলেয়া আক্তারের কোমরের হাড় ভেঙ্গে দিয়েছে। এছাড়া আহতরা হলেন, নুর জাহান (৬৫), হাসিনা বেগম (৫৫), রুনা বেগম ৭ মাসের অন্ত:সত্বা, খালেদা বেগম, মোঃ বাহার।

তিনি আরোও বলেন, ঘরে থাকা গ্যাস সিলিন্ডারে আগুন দিয়ে মানুষ সহ মেরে ফেলতে চেয়েছে হামলাকারীরা। পরে ঘরটি ভাংচুর করে হামলাকারীরা মালামাল নিয়ে যাওয়ার সময় পুলিশ উদ্ধার করেন। তবে ঘটনার সময় থানা পুলিশ কে জানিয়েও কোন সহযোগীতা পাইনি। প্রভাবশালীদের মদদে ওই জমিতে ঘর উত্তোলন করার জন্য ইট নিয়ে এসেছে ওরা। আমরা নিরাপত্তাহীনতায় ভূগছি। সঠিক তদন্ত সাপেক্ষে আমরা এ ঘটনার উপযুক্ত বিচার চাই।

এদিকে মোস্তাফিজুর রহমান গংদের মোঃ আরাফাত নোমান তাদের বিরুদ্ধে আনীত অভিযোগ অস্বীকার করে বলেন, ওরা আমাদের জমিতে জোর পূর্বক ঘর উত্তোলন করে। ওই ঘর সরাতে গেলে ওরা আমাদের উপরও হামলা করেছে। আমরা ৪ জন আহত হয়েছি।

উভয় গ্রুপের আহতরা ভোলা ও বোরহানউদ্দিন হাসপাতালে ভর্তি হয়ে চিকিৎসা সেবা নিচ্ছে।

এব্যাপার বোরহানউদ্দিন থানার ওসি মোঃ মাজহারুল আমিন জানান, ঘটনাস্থলে গিয়ে ভাংচুরকৃত মালামাল ভর্তি ট্রাক থানায় নিয়ে আসা হয়। এ ঘটনায় কেউ অভিযোগ করেনি। অভিযোগ পেলে আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।