বোরহানউদ্দিনে ৭ম শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে আটক ১

প্রকাশিত: ৭:৩১ অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১০, ২০২১ | আপডেট: ৭:৩১:অপরাহ্ণ, জানুয়ারি ১০, ২০২১
বোরহানউদ্দিনে ৭ম শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে আটক ১

ভোলার বোরহানউদ্দিন উপজেলার কাচিয়া ইউনিয়নে ৭ম শ্রেণীর ছাত্রীকে ধর্ষণের অভিযোগে একজনকে আটক করেছে বোরহানউদ্দিন থানা পুলিশ।

শনিবার রাত ১০টায় ছাত্রীর বসত ঘর থেকে অভিযুক্ত ধর্ষণকারী বেলাল (৩০) কে এলাকাবাসি আটক করে বোরহানউদ্দিন থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করেন।

ধর্ষিতা কিশোরীর মা অভিযোগ করে জানান- অভিযুক্ত বেলাল একই এলাকার মো: আবুর ছেলে, সে বিবাহিত এবং তার একটি বাচ্চা থাকা সত্ত্বেও আমার ৭ম শ্রেণীতে পড়ুয়া মেয়ে কে গত দুই মাস আগে বেলাল আমার মেয়ের সাথে পথিমধ্যে মোবাইলে একটি ছবি তোলে। এই ছবি ইন্টারনেটে ভাইরাল করার ভয় দেখিয়ে একাধিকবার ধর্ষণ করলে আমার মেয়ে অসুস্থ্য হয়ে গেলেও আমাকে জানায়নি, কিন্তু মেয়েকে যখন চাপ দিয়ে জিঞ্জাসা করি মেয়ে এক পর্যায়ে স্বীকার করে প্রতিবেশি এক সন্তানের জনক বেলাল তাকে মোবাইলের ছবি ইন্টারনেটে ছড়িয়ে দেওয়ার ভয় দেখিয়ে ধর্ষণ করে এবং আজ রাতে আবার আসবে বলে জানায়।

তখন আমি ঘটনাটি বাড়ির মুরুব্বিদের জানালে তারা ওৎ পেতে থাকে এবং ধর্ষণকারী বেলাল রাত ১০টার দিকে আসলে তাকে হাতেনাতে ধরে বোরহানউদ্দিন থানা পুলিশকে খবর দিলে পুলিশ ধর্ষণকারী বেলালকে আটক করে থানায় নিয়ে আসে।

পরবর্তীতে ভিকটিমের মা বাদী হয়ে বেলালের বিরুদ্ধে ধর্ষণের অভিযোগ দাখিল করেন।

এ ব্যাপারে বোরহানউদ্দিন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মাজহারুল আমিন জানান অভিযুক্ত বেলালকে আটক করি। ভিকটিমের মেডিকেল পরীক্ষার জন্য প্রস্তুতি চলছে। তদন্ত সাপেক্ষে ব্যাবস্থা নেওয়া হবে।